৩ টি জন্মদিন খালেদা জিয়ার , বুধবার হাইকোর্টে শুনানি

প্রকাশিত: ৮:০৪ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৪, ২০২১

উচ্চ আদালতের নির্দেশের প্রেক্ষিতে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জন্মদিন সংক্রান্ত সব নথি হাইকোর্টে দাখিল করা হয়েছে।

১৫ আগস্ট খালেদা জিয়ার জন্মদিন পালন করা নিয়ে জারি করা রুল এবং এ সংক্রান্ত প্রতিবেদনের ওপর শুনানির জন্য বুধবার (১৫ ডিসেম্বর) দিন ধার্য করেছেন হাইকোর্ট।

আজ মঙ্গলবার (১৪ ডিসেম্বর) বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী নাহিদ সুলতানা যুথি। তাকে সহযোগিতা করেন আইনজীবী শাকিলা রওশন ও সাগুফতা আহমেদ। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিপুল বাগমার।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, পুলিশের আইজি, এসবি, মাধ্যমিক উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ড, পাসপোর্ট অফিস, নির্বাচন কমিশন ও এভারকেয়ার হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করেছে। প্রতিবেদনে খালেদা জিয়ার জন্মদিন ১৯৪৬ সালের ৮ মে, ১৫ আগস্ট ও ৫ সেপ্টেম্বর উল্লেখ করা হয়েছে।

এর আগে সকালে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জন্মদিন সংক্রান্ত সকল নথি হাইকোর্টে দাখিল করা হয়।

উল্লেখ্য, ১৩ জুন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জন্মদিন সংক্রান্ত সব নথি তলব করেন হাইকোর্ট। সংশ্লিষ্টদের সব নথি আদালতে দাখিল করতে বলা হয়। একইসঙ্গে ১৫ আগস্ট খালেদা জিয়ার জন্মদিন পালন বন্ধে কর্তৃপক্ষের নিষ্ক্রিয়তা কেন বেআইনি ঘোষণা করা হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন আদালত।

চলতি বছরের ৩১ মে খালেদা জিয়ার ভিন্ন ভিন্ন জন্মদিনের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিট দায়ের করেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী নাহিদ সুলতানা যুথি। রিটে স্বরাষ্ট্র সচিব, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় সচিব, পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি), ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার, গুলশান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এবং খালেদা জিয়াকে বিবাদী করা হয়। আরটিভি অনলাইন